ভারত

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল কলকাতা

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল হল (Victoria Memorial) রাণী ভিক্টোরিয়ার একটি স্মৃতিসৌধ। ১৯০১ সালে ৯৪ বছর বয়সে ইংল্যান্ডের মহারানী ভিক্টোরিয়া মারা যান। এর পর কলকাতায় তাঁর স্মৃতির উদ্দেশ্যে সাদা মার্বেল পাথরের এই ভবনটি নির্মাণ করা হয়। বর্তমানে এটি জাতীয় জাদুঘর এবং কলকাতার অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ পর্যটন আকর্ষণ কেন্দ্র।

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল কোথায় অবস্থিত

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল ভারতের কলকাতা শহরে হুগলি নদীর পারে অবস্থিত। জওহরলাল নেহরু রোডের পরে, স্থানীয়ভাবে পরিচিত ময়দানের উপর এর অবস্থান। ছুটির দিনে এখানে প্রচুর লোকের সমাগম হয়। এছাড়া যারা বিদেশ থেকে কলকাতায় আসে, তারা একবার হলেও এখানে আসে।

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল হল

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল হল বা ভিক্টোরিয়া স্মৃতিসৌধ মহারানি ভিক্টোরিয়ার স্মৃতির উদ্দেশ্যে নির্মিত একটি স্মৃতিস্তম্ভ। এটি কলকাতা শহরে হুগলি নদীর পারে অবস্থিত। এর নকশা প্রস্তুত করেন স্যার উইলিয়াম এমারসন। এর নির্মাণ কাজ শুরু হয় ১৯০৬ সালে এবং উদ্বোধন করা হয় ১৯২১ সালে।

এই ভবনের উত্তর এবং দক্ষিণ দু-দিকেই রেয়েছে বিশাল দরজা। ভিতরে আরো আছে সন্দুর বাগান। প্রায় ৬৪ একর জমির উপর নির্মিত এই ভবনটির দৈর্ঘ্য ১০৩.০২ মিটার, প্রস্থ ৬৯.৪৯ মিটার। এই ভবন পুরাটাই শ্বেত পাথরের তৈরি। এটি বর্তমানে একটি জাতীয় জাদুঘর এবং কলকাতার অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ পর্যটন কেন্দ্র। এটি কলকাতার সব থেকে সুন্দর স্থাপনা।

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল অনেক বড়। এর ভিতরে ২৫ টি গ্যালারি আছে। তাদের মধ্যে স্কাল্পচার গ্যালারি, রয়্যাল গ্যালারি, সেন্ট্রাল হল, পোট্রেট গ্যালারি, আর্মস এন্ড আড়মাড় গ্যালারি, ক্যালকাটা গ্যালারি উল্লেখযোগ্য। এ ছাড়াও এখানে সেই সময়ের স্টাম্পস কয়েন এবং ম্যাপের একটি গ্যালারিও আছে যা খুবই ইন্টারেষ্টিং।

এই জমির ওপরে আগে ছিল প্রেসিডেন্সি কারাগার। পরে এই কারাগার সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয় আলিপুরে। সেই কারাগারের জমির ওপরেই তৈরী করা হয় ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল। ভারত স্বাধীন হলে দেশে নানা প্রান্তে ছড়িয়ে থাকা বিভিন্ন ব্রিটিশ শাসকের ভাস্কর্য তুলে ফেলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। এর পরেও অনেক ভাস্কর্যই এখনো শোভা পায় এর বিশাল বাগানে।

এটি বানানোর জন্য লর্ড কার্জন দেশের বিভিন্ন রাজ্য থেকে টাকা দেয়ার আবেদন বা অনুরোধ করেন। সব রাজ্য তাদের সাধ্য মত টাকা প্রদান করেন। এই স্মৃতিসৌধ বানাতে সেই সময় খরচ হয়েছিল এক কোটি পাঁচ লক্ষ টাকা।

যাবার উপায়

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল হল যেতে হলে আপনাকে প্রথমেই আসতে হবে কলকাতা শহরে। কলকাতার যেকোনো জায়গা থেকে আপনি ট্যাক্সি নিয়ে সরাসরি চলে যেতে পারবেন। এছাড়া রেল, মেট্রো রেল বা বাসেও যেতে পারেন । কাছাকাছি রেলওয়ে স্টেশন হল হাওড়া রেলওয়ে স্টেশন। এখান থেকে গাড়ির দিয়ে ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালে পৌঁছাতে ১৫ মিনিট সময় লাগবে। কাছাকাছি মেট্রো রেল স্টেশন হল ময়দান। এখান থেকে ট্যাক্সি বা লোকাল বাসের মাধ্যমে ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালে পৌঁছাতে পারেন।

সময় সূচি

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল সোমবার ব্যতীত, সপ্তাহের প্রতিদিনই দর্শকদের জন্য উন্মুক্ত থাকে। সকাল ১০ টায় এটি খোলে এবং সন্ধ্যা ৫ টায় বন্ধ হয়। এছাড়া শেষ বিশেষ ছুটির দিনে এটি বন্ধ থাকে।

টিকেটের মূল

এখানে বাগান ও ভবনে প্রবেশের জন্য আলাদা আলাদা ভাবে টিকিট আছে। ভারতীয় দের জন্য ১০ টাকা, বিদেশিদের জন্য ২০০ টাকা। এছাড়া মাসিক ও বার্ষিক হিসাবেও টিকেট পাওয়া যায়।

5 2 ভোট
রেটিং

লেখক

রাশেদুল আলম

আমি একজন সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার, ট্রাভেল ফটোগ্রাফার। তথ্য-প্রযুক্তি নিয়ে কাজ করলেও ঘুরে বেড়াতে ভীষণ ভালোবাসি। নিজের ভ্রমণ অভিজ্ঞতা এবং জ্ঞান কে এই ওয়েব সাইটে নিয়মিত শেয়ার করার চেষ্টা করি।

1 মন্তব্য
Inline Feedbacks
সব মন্তব্য দেখুন
''
1
0
আমরা আপনার অভিমত আশা করি, দয়াকরে মন্তব্য করুনx
()
x